আধার কার্ড নিয়ে সতর্কতামূলক ঘোষণা, এমনটা না করলে সমস্যায় পড়তে পারেন

2009 সালে তৎকালীন কেন্দ্র সরকার ভারতের সকল নাগরিকের জন্য আধার কার্ড এর ঘোষণা করেন। আঁধার কার্ডের মাধ্যমে কেন্দ্র সরকার এমন এক পরিচয়পত্রের উদ্ভাবন ঘটাতে চেয়েছিল যাতে একজন ব্যক্তির সমস্ত তথ্য সরকারের কাছে থাকে। শুধু তাই নয় একজন নাগরিককে সরকারি বিভিন্ন সুযোগ-সুবিধা দেওয়ার জন্য সকলের জন্য আঁধার ক্যাম্পেন চালু করা হয়েছিল।  

আমাদের দৈনন্দিন জীবনের বিভিন্ন কাজ যেমন রেশন তোলা থেকে শুরু করে মোবাইলের সিম কার্ড নেওয়া ইত্যাদির জন্য, সেইসাথে সরকারি যেকোনো সুযোগ সুবিধা পাওয়ার জন্য আঁধার কার্ডকে কম্পালসারি করানো হয়েছে। এককথায় কোনো কাজের জন্য প্রধান ডকুমেন্ট হিসেবে আঁধার কার্ডকে আমরা এখন ব্যাবহার করছি। তাই আঁধার কার্ডের সাথে মোবাইল নম্বর যুক্ত করা বা অন্যান্য তথ্য গুলি আপডেট করার মতো বিষয়গুলিকে গুরুত্ব না দিলে আপনাকেও সমস্যায় পড়তে হতে পারে

Aadhar Card Precaution Update

এমন অনেক লোক আছে যাদের আধার কার্ডের সঙ্গে আঙ্গুলের ছাপ মেলে না বা তাদের অনেকদিন আগেকার ছবির সাথে বর্তমান চেহারার মিল খায় না। শুধু তাই নয় এমন অনেক লোক আছেন যারা তাদের আধার কার্ডের সঙ্গে মোবাইল নম্বর লিঙ্ক করেননি। তাদের বর্তমানে এবং ভবিষ্যতেও বিভিন্ন সমস্যার সম্মুখীন হতে হবে।

যদি আধার কার্ডের সঙ্গে আঙ্গুলের ছাপ না মেলে তাহলে পরিচয় ক্ষুন্ন হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। আরেকটি বিষয়, এমন অনেকেই আছেন যারা চাকরির সূত্রে হোক বা অন্য কারণে তাদের বাসস্থান পরিবর্তন করে। তাদের ক্ষেত্রে বর্তমান ঠিকানা আধার কার্ডে আপডেট করার প্রয়োজন হয়। এমনটা না করলেও তাদেরকে কোনো কোনো ক্ষেত্রে সমস্যার মুখোমুখী হতে হয়।

আঁধার কার্ড আপডেট (Aadhar Card Update)

২০০৯ সালে বা তার কয়েক বছর পর যারা বাচ্চা ছিল তারা এখন অনেকটাই বড়ো হয়েছে। চেহারার অনেক পরিবর্তন হয়েছে। তাদের আগামী দিনে বিভিন্ন কাজের জন্য আঁধার বারবার প্রয়োজন হবে। তাই তাদেরকে তাদের আঁধার কার্ড মূলত ছবি আপডেট করার প্রয়োজন। সেইসাথে গুরুত্বপূর্ন একটি কথা আপনাকে জানিয়ে রাখব, আঁধার কার্ডে নাম, ঠিকানা যেকোনো তথ্য আপডেটের সাথে সাথে তাতে মোবাইল নাম্বার ইমেইল আইডি ইত্যাদি আপডেট করতে একদম ভুলবেন না। 

আরো একটি কথা আপনাকে জানিয়ে রাখি, এমন অনেক কাজ রয়েছে যেগুলিতে আধার কার্ডের সঙ্গে মোবাইল নম্বর লিংক না থাকলে কাজগুলো করা যায় না। তার মধ্যে অন্যতম একটি হচ্ছে ই-শ্রম কার্ড। কেন্দ্র সরকারের ই-শ্রম কার্ড আবেদন করতে গেলে আবেদনকারীর আধার কার্ডের সঙ্গে অবশ্যই মোবাইল নম্বর লিংক থাকতে হবে। তা না হলে আবেদন করা যায় না।

কেন্দ্র সরকারের বা রাজ্য সরকারের বিভিন্ন প্রকল্পের আওতায় যে সমস্ত টাকা পাওয়া যায় তা সরাসরি আবেদনকারীর ব্যাংক অ্যাকাউন্টে পাঠানো হয়। অনেক সময় এমনটাও হয়, যদি আধার কার্ডের সঙ্গে মোবাইল নম্বর লিংক না থাকে তাহলে টাকা সরাসরি ব্যাংক অ্যাকাউন্টে পেতে অনেক সমস্যা হয়। 

কিভাবে আধার কার্ড আপডেট করা যাবে

ভারতের অনেক জায়াগায় বিশেষ করে গ্রামীণ এলাকায় এমন অনেক লোক রয়েছে যারা আধার কার্ড আপডেট সম্পর্কে জানেন না। কিন্তু আমরা চাইলে খুব সহজেই আধার কার্ড আপডেট করিয়ে নিতে পারে। আমাদের প্রায় সকলের বাড়ির কাছাকাছি কোনো জায়গায় CSC বা কমন সার্ভিস সেন্টার রয়েছে। এখান থেকে আমরা আধার কার্ড এর বেশ কিছু তথ্য সংশোধন করতে পারবো।

আধার পোর্টালের মাধ্যমে আধার কার্ডের সংশোধন

কেন্দ্র সরকারের মাধ্যমে পরিচালিত আধার কার্ডের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট myaadhaar.uidai.gov.in থেকে খুব সহজেই আধার কার্ড আপডেট করা যাবে। 

১. ওয়েবসাইট ওপেন করে প্রথমেই আপনাকে আপনার আধার কার্ড নাম্বার দিয়ে লগইন করতে হবে। 

২. এর জন্য অবশ্যই আপনাকে আধার কার্ডের সঙ্গে মোবাইল নম্বর আগে থেকেই লিংক করে রাখতে হবে। তা না হলে পোর্টালে লন ইন করা যাবে না।

৩. আঁধার কার্ডের সাথে লিংক করা মোবাইল নম্বরে একটি ওটিপি আসবে। সেটি দিতে হবে, এরপর লগ ইন হয়ে যাবে।  

৪. লগইন করার পরেই আধার আপডেট করার একটি ফর্ম মোবাইল বা কম্পিউটারের স্ক্রিনে ভেসে উঠবে।

৫. যে সমস্ত তথ্যগুলি আপডেট করার প্রয়োজন সেগুলি এক এক করে কারেকশন করে দিয়ে সাবমিট করতে হবে। 

আপনি যদি নিজে থেকেই এগুলি না করতে চান তাহলে নিকটবর্তী কোন CSC সেন্টারে গিয়ে আধার কার্ড সংশোধনের কাজটি সহজেই করতে পারবেন। 

👉 সরকারি প্রকল্প, সরকারি সুবিধার নতুন নতুন তথ্য মিস না করতে চাইলে আমাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলে Join হয়ে থাকুন

🔥 এগুলোও পড়ুন 👇👇