ন্যাশনাল স্কলারশিপ 2022, আবেদন প্রক্রিয়া | National Scholarship 2022 Application Process in Bengali

মাধ্যমিক পাস করা ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য ন্যাশনাল স্কলারশিপ (National Scholarship) আবেদনের জন্য দারুন সুযোগ। আবেদন করলেই ভালো অংকের টাকা পাওয়া যাবে। শুধু মাধ্যমিক পাস নয় মাধ্যমিক পাশের পরেও শিক্ষার্থীরা এই ন্যাশনাল স্কলারশিপ এর জন্য আবেদন করতে পারবে। আজকের এই প্রতিবেদনে ন্যাশনাল স্কলারশিপে আবেদনের যোগ্যতা, আবেদন পদ্ধতি ইত্যাদি বিষয়ে বিস্তারিত জানানো হয়েছে।

আপনাকে জানিয়ে দিই, এই ন্যাশনাল স্কলারশিপ কেন্দ্র সরকারের একটি স্কলারশিপ প্রোগ্রাম। এর জন্য ছাত্রছাত্রীদের ন্যাশনাল স্কলারশিপ পোর্টাল (NSP) থেকে সরাসরি অনলাইনে আবেদন করতে হবে।

ন্যাশনাল স্কলারশিপে আবেদনের যোগ্যতা

  1. ভারতের নাগরিক হতে হবে।
  2. ভারতের যেকোনো সরকারি বা বেসরকারি প্রতিষ্ঠান থেকে পড়াশোনা করলে আবেদন করতে পারবেন।
  3. ভারতে বসবাসকারী যেকোনো সম্প্রদায় শিখ, জৈন, হিন্দু, মুসলিম ইত্যাদি সমস্ত ধরনের শিক্ষার্থী আবেদন করতে পারেন।
  4. এছাড়া পেশাদারী কোর্সের জন্য এই স্কলারশিপ আবেদন করতে পারে।
  5. প্রথম শ্রেনি থেকে উচ্চতর শিক্ষাগত যোগ্যতার কোর্সে পাঠরত সকল ছাত্রছাত্রীরা আবেদন করতে পারবে।

ন্যাশনাল স্কলারশিপর বিভিন্ন ধরন

  1. Pre Matric Scholarship
  2. Post Matric Scholarship 
  3. Merit Cum Means Scholarship 

Pre Matric Scholarship

  • প্রিম্যাট্রিক স্কলারশিপ প্রথম শ্রেণি থেকে দশম শ্রেণীর শিক্ষার্থীরা আবেদন করতে পারবেন।
  • আগের পরীক্ষায় ৫০ শতাংশ বা তার কম নম্বর নিয়ে পাস করতে হবে।
  • পরিবারিক বার্ষিক আয় ১ লাখ টাকার কম হতে হবে।

Post Matric Scholarship

  • Post Matric Scholarship টি একাদশ শ্রেণি থেকে স্নাতক স্তরের শিক্ষার্থী আবেদন করতে পারবেন।
  • বার্ষিক আয় ২ লক্ষ টাকা কম হতে হবে।
  • শেষ পরীক্ষায় কমপক্ষে ৫০ শতাংশ নম্বর নিয়ে পাস করতে হবে।
  • B.sc, B.com, B.tech, ITI, Medical এর শিক্ষার্থীরাও আবেদন করতে পারেন।

Merit Cum Means Scholarship 

  • এই স্কলারশিপটি সাধারণত পেশাদারী কোর্সের জন্য যারা পড়াশোনা করছে তারা আবেদন করবেন।
  • পারিবারিক বার্ষিক আয় ২.৫ লক্ষ টাকার মধ্যে হতে হবে।
  • আগের পরীক্ষায় ৫০ শতাংশ নম্বর নিয়ে পাস করতে হবে।
  • পেশাদারী কোর্সের জন্য আবেদন করতে পারবেন।

ন্যাশনাল স্কলারশিপ এর টাকার পরিমান

ন্যাশনাল স্কলারশিপের শিক্ষার্থীরা পড়াশোনা এবং পেশাদারী কোর্সের জন্য বছরে ৩০০০ থেকে ২০ হাজার টাকা পর্যন্ত সরকারি সুবিধা পাবেন।

ন্যাশনাল স্কলারশিপে আবেদনের জন্য প্রয়োজনীয় ডকুমেন্ট

  • শেষ পরীক্ষার মার্কশিট
  • অ্যাডমিট কার্ড
  • আধার কার্ড
  • ইনকাম সার্টিফিকেট
  • বাসিন্দা সার্টিফিকেট
  • কাস্ট সার্টিফিকেট (যদি থাকে)
  • ভর্তির রশিদ
  • পাসপোর্ট সাইজের রঙিন ফটো
  • ব্যাংকের পাশ বই
  • নিজস্ব ইমেইল আইডি

ন্যাশনাল স্কলারশিপের আবেদন প্রক্রিয়া

ন্যাশনাল স্কলারশিপ এর জন্য সাধারনত অনলাইনে আবেদন হয়, অনলাইনে আবেদন প্রক্রিয়াটি হল-

  1. ন্যাশনাল স্কলারশিপ এর এই www.scholarships.gov.in ওয়েবসাইটে গিয়ে যেতে হবে।
  2. তারপর আপনি নতুন রেজিস্ট্রেশন করবেন। 
  3. রেজিস্ট্রেশন করার জন্য আপনার নাম, রাজ্যের নাম, জন্মতারিখ, একাউন্ট নাম্বার, আধার কার্ড, মোবাইল নম্বর ইত্যাদি দিতে হবে।
  4. রেজিস্ট্রেশনের পর আপনার মোবাইলে নিজস্ব আইডি পাসওয়ার্ড মেসেজ আসবে এবং সেটি রেজিস্ট্রেশনে গিয়ে Login to apply ক্লিক করবে।
  5. তারপর আপনাকে নতুন পাসওয়ার্ড সেট করতে হবে। সেট হওয়ার পর সাবমিট করলে আপনার সামনে একটি নতুন ফর্ম আসবে।
  6. এরপর ফর্মটি সম্পূর্ণ পূরণ করবেন এবং প্রয়োজনীয় ডকুমেন্ট স্ক্যান করে আপলোড করবেন।
  7. এরপর শেষে ভেরিফাই করে সাবমিট করে দিতে হবে।

আবেদন করার পর প্রয়োজনীয় সমস্ত নথি পত্রের জেরক্স নিয়ে নির্দিষ্ট স্কুল বা কলেজে জমা করতে হবে এবং প্রতিষ্ঠান কর্তৃপক্ষ মেইন অফিসে করবে। জমা করার পর ভেরিফিকেশনের সময় আপনার মোবাইলে SMS আসবে। এরপর বছর শেষে আপনার একাউন্টে সরাসরি টাকা ঢুকবে।

হেল্পলাইন নম্বর

0120-661-9540 

(সকাল ৮ টা থেকে রাত ৮ টা পর্যন্ত)

ইমেইল – [email protected]

👉 বিভিন্ন স্কলাশিপ, সরকারি প্রকল্প, সরকারি সুবিধার নতুন নতুন তথ্য মিস না করতে চাইলে আমাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলে Join হয়ে থাকুন

🔥 আরো স্কলারশিপ 👇👇

👉 স্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপ 2022

👉 জগদীশ বোস ন্যাশনাল সাইন্স ট্যালেন্ট সার্চ স্কলারশিপ